তথ্য জানার সহজ মাধ্যোম

একের পর এক বিস্ফোরিত হচ্ছে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ !

সবাই স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ মোবাইলটার সাথে পরিচিত । বর্তমান বিশ্বে আলোড়ন সৃষ্টিকারী একটি ফোন । দুর্দান্ত ফিচার আর অসাধারণ ডিজাইন নিয়ে বাজরে নেমেছিল ফোনটি । তবে এতে স্যামসাং কোন প্রকার সফলতা পায়নি বললেই চলে । এই ফোন বাড়িয়ে দিয়েছে স্যামসাং এর হতাশা । একের পর এক অভিযোগের কারণে খুব খারাপ একটি সময় যাচ্ছে স্যামসাং কোম্পানির ।

 এই ফোনটি সারা পৃথিবীতে আলোড়ন সৃষ্টি করেছে তবে এই আলোড়ন ফোনটির গুনগত মানের কারণে নয় বরং এক মারাত্মক ত্রুটির কারণে । হয়তবা আপনিও ফোনটির সাথে পরিচিত এই মারাত্মক ত্রুটির কারণে । যদিও স্যামসাং কর্তিপক্ষ একে সামান্য ত্রুটি বলে আখ্যায়িত করেছেন তবে ব্যাবহারকারীদের নিকট মোটেও এটি সামান্য কোন ত্রুটি নয় । বরং সবার চোখে এটি বিশাল এক ত্রুটি ।

কেননা, এই ত্রুটিটি ফোনের ব্যাটারিতে । চার্জে লাগানোর পর স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট সেভেন বিস্ফোরিত হয়ে যায়, এমন ঘটনা ঘটেছে অনেক ।

স্যামসাং থেকে বলা হয়েছে এই ত্রুটি এতটাই সামান্য যে, ফোন বাজারজাত করার সময় ত্রুটিটি ধরা পরেনি । তবে এর ফলাফল বলে দেয় যে এই ত্রুটি কতটা মারাত্মক । আবার, বিস্ফোরিত ফোন পরিবর্তন করে দেওয়ার ঘোষণা করেন স্যামসাং কর্তিপক্ষ । এটা স্পষ্ট যে, ঘটনা এড়িয়ে গিয়েছে স্যামসাং । তবে বিশ্বের চোখে স্যামসাং এখন কোণঠাসা !!!

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ

 

বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ ওয়েবসাইট থেকে জানা গিয়েছে যে পৃথিবীতে আজ পর্যন্ত যত ফোন বিস্ফোরিত হয়েছে তার বেশিরভাগই স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ !!! অর্থাৎ পূর্বে যত মোবাইল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে তার সবগুলোর যোগফল স্যামসাং নোট ৭ এর তুলনায় কম এবং এতে হতাহতের সংখ্যাও অনেক । কিন্তু স্যামসাং কর্তিপক্ষের মতে ফোন বিস্ফোরণের সংখ্যা অতি নগণ্য এবং হতাহতের কোন ঘটনা ঘটেনি !!! সাধারণত গুগলে কোন ফোনের মডেল লিখে সার্চ দিলে চলে আসে ফোনের Specification কিন্তু গুগলে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট সেভেন লিখে সার্চ করলে ফোনের Specification এর তুলনায় খুব বেশি চোখে পড়ে এর ভয়াবহতা । তবে গুগলে পাওয়া সব তথ্যই সত্য নয় ।

 

 

বিভিন্ন ছবিতে দেখা যায় বিস্ফোরণের কারণে হাতের ক্ষত বিক্ষত অবস্থা । 

untitled

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ

স্যামসাং এর দাবি এমন কোন ঘটনাই এই বিস্ফোরণের কারণে ঘটতে পারেনা ।  তাদের মতে এই বিস্ফোরণে ফোনের ব্যাটারি ফোন থেকে আলাদা হয়ে যায় এবং ব্যাটারি খোলার সহজ কোন ব্যাবস্থা নেই বলে ব্যাটারি বিচ্ছিন হয়ে যাওয়ার সময় ফোনের মাদার বোর্ড, বডি এবং ডিসপ্লেরও ক্ষতি হয় । এতে হতাহতের সম্ভাবনা নেই !!

  

কিন্তু একের পর এক বিস্ফোরণ ঘটতে থাকার কারণে ভিবিন্ন দেশের এয়ারপোর্টে এই ফোন বহন নিষিদ্ধ করে দেওয়া হয় । আবার অনেক দেশে এই ফোন রপ্তানি করার অনুমতি দেওয়া হয়নি ।

 

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই ঘটনা এত পরিমাণে প্রচারিত হয়েছে যে, প্রায় সবাই এই ঘটনা সম্পর্কে কম বেশ জানে । বর্তমানে ফেসবুকে জোকস এবং ট্রলের একটি বড় যায়গা দখল করে আছে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট সেভেন ।

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ

আরো পড়ে আসতে পাড়েন ঃ

  1. বাজারের সেরা ল্যাপটপ সমুহ কি কি?
  2. ড্রোন কি ও ড্রোন কিভাবে কাজ করে
  3. অনলাইন থেকে আয় করার কিছু মাধ্যম

 

শুধু ট্রলে সীমাবদ্ধ নয় GTA 5 গেমস এ হ্যান্ড গ্রেনেডের বদলে দেওয়া হয়েছে গ্যালাক্সি নোট সেভেন । গেমসে এটি ছুড়ে মারলে একটু দূরে গিয়ে বিস্ফোরিত হয়ে যায় ।

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণ

 

স্যামসাং ভক্তরা এই ফোনের কারণে অনেকেই আশাহত । বেশিরভাগ ভক্তের অভিমত তারা স্যামসাং এর কাছ থেকে এমনটা আশা করেনি । তবে অনেকের বিশ্বাস এই দুর্নাম কাটিয়ে উঠতে খুব বেশি সময় লাগবেনা স্যামসাং এর । কিন্তু স্যামসাং যত আশার কথা শুনাক না কেন তারা যে তাদের মার্কেট হারিয়েছে সেটা বলার অপেক্ষা রাখে না। 

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Close